গোপালগঞ্জ প্রতিনিধি
বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ে (বশেমুরবিপ্রবি) ইনোভেশন হাব প্রোগ্রাম চালু হয়েছে। বুধবার বিশ্ববিদ্যালয়ের অ্যাকাডেমিক ভবনে আয়োজিত উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন বিশ্ববিদ্যালয়ের ভাইস-চ্যান্সেলর অধ্যাপক ড. এ. কিউ. এম. মাহবুব।

বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রো-ভাইস-চ্যান্সেলর প্রফেসর ড. সৈয়দ সামসুল আলমের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে স্বাগত বক্তব্য দেন বিশ্ববিদ্যালয়ের ইঞ্জিনিয়ারিং অনুষদের ডিন ও বশেমুরবিপ্রবি ইনোভেশন হাবের ফোকাল পয়েন্ট ড. আব্দুল্লাহ আল আসাদ। এতে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন ইনোভেশন এন্ড কমার্শিয়ালাইজেশন স্পেশালিস্ট এ. এন. এম. শফিকুল ইসলাম ও প্রযুক্তি উদ্যোক্তা শাহ পরাণ।

ভাইস-চ্যান্সেলর অধ্যাপক ড. এ. কিউ. এম. মাহবুব বলেন, প্রতিটা মানুষের মধ্যে সুপ্ত প্রতিভা রয়েছে। আর তরুণ শিক্ষার্থীদের মধ্যে অপার সম্ভাবনা লুকিয়ে থাকে। আজ থেকে ২০ বছর আগেও হয়ত সেসব সম্ভাবনাকে কাজে লাগানোর খুব বেশি সুযোগ ছিল না। কিন্তু সেই দিন বদলেছে। কারণ মুক্ত বাজার অর্থনীতির ধারণা উন্নত দেশের গণ্ডি পেরিয়ে বিশ্বব্যাপী ছড়িয়েছে। আজকের ইনোভেশন যুগে ঘরে বসেও নিজের উদ্ভাবিত আইডিয়া কাজে লাগানো যাচ্ছে। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে সরকার বিভিন্ন বিশ্ববিদ্যালয়ে ইনোভেশন হাব গড়ে তোলার মধ্য দিয়ে আমাদের সম্ভাবনাময় শিক্ষার্থীদের ‘প্রযুক্তি-উদ্যোক্তা’ হতে অনবদ্য ভূমিকা পালন করবে।
সভাপতির বক্তব্যে বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রো-ভাইস-চ্যান্সেলর প্রফেসর ড. সৈয়দ সামসুল আলম বলেন, আমাদের শিক্ষার্থীরা অত্যন্ত মেধাবী। সবার কিছু না কিছু করার যোগ্যতা অবশ্যই আছে। তারপরও সবাই সরকারি চাকরি পাবে না। কিন্তু ইনোভেশন হাব শিক্ষার্থীদের মেধার বিকাশ ঘটানোর দারুণ সুযোগ তৈরি করে দিয়েছে। শিক্ষার্থীরা সেই সুযোগকে বাস্তব জীবনে কাজে লাগাবে এমনটাই প্রত্যাশা করেন প্রফেসর ড. সৈয়দ সামসুল আলম।

উল্লেখ্য, ইনোভেশন হাব প্রোগ্রামের প্রথম পর্যায়ে বিশ্ববিদ্যালয়ের বিভিন্ন বিভাগের ৫০ শিক্ষার্থী অংশগ্রহণ করছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Verified by MonsterInsights