ইংলিশ স্পিনারদের উত্থানের নেপথ্যে বেন স্টোকস!

অনলাইন ডেস্ক

ভারত-ইংল্যান্ড সিরিজ শুরুর আগে ভারতীয় স্পিন আক্রমণকেই বেশি গুরুত্ব দেওয়া হচ্ছিল। অভিজ্ঞতা ও দক্ষতায় অনেক এগিয়ে ছিলেন ভারতীয় স্পিনাররা। অন্যদিকে, ইংল্যান্ড দলে জ্যাক লিচ ছাড়া কোনও অভিজ্ঞ স্পিনার ছিল না। বাঁ-হাতি স্পিনার টম হার্টলি এবং অফস্পিনার শোয়েব বশিরের অভিষেক হয়েছে চলতি সিরিজে। লেগ স্পিনার রেহান আহমেদও বেশি ম্যাচ খেলেননি।

কিন্তু প্রথম দুই টেস্টের পরে দেখা যাচ্ছে পরিসংখ্যানের দিক দিয়ে এগিয়ে রয়েছেন ইংল্যান্ডের স্পিনারররাই। রেহান, হার্টলি, বশির মিলে দু’টেস্টে ৩৩ উইকেট নিয়েছেন। সেখানে অশ্বিন, জাদেজা, কুলদীপ যাদব এবং অক্ষর পাটেলের মিলিত সংগ্রহ ২৩টি উইকেট। এই পরিসংখ্যানের কথা উল্লেখ করে ইংল্যান্ডের গণমাধ্যমে রেহান বলেছেন, ‘‘এতেই বোঝা যায়, দলের পরিবেশটা কী সুন্দর।’’ দলে স্পিনারদের উত্থানের নেপথ্যে রেহান কৃতিত্ব দিয়েছেন অধিনায়ক বেন স্টোকসকেই।

তরুণ লেগস্পিনার বলেছেন, ‘‘আপনারা বশির আর টমি (হার্টলি)-কে দেখেছেন। ওরা বল করতে এসে এতটুকুও চাপে ছিল না। এমনকি, নিজেদের প্রথম ম্যাচেও। এতেই বোঝা যাচ্ছে, দলের সমর্থনটা ওরা কতটা পেয়েছে। সবাই কী ভাবে পাশে দাঁড়াচ্ছে।’’ যোগ করেন, ‘‘দলের পরিবেশ এবং নেতৃত্ব এমন জায়গায় আমাদের নিয়ে গিয়েছে যে বিপরীত দিকে কারা খেলছে, সেটা আর মাথায় থাকে না। আমাদের কী করতে হবে, সেটাই শুধু মাথায় থাকে।’’
শুধু উইকেট প্রাপ্তির বিচারেই নয়, ওভার পিছু রান দেওয়ার ব্যাপারেও ইংল্যান্ডের স্পিনাররা টেক্কা দিয়েছেন ভারতীয় স্পিনারদের। রেহানদের করা মিলিত ওভারে কম রান উঠেছে। অধিনায়ক বেন স্টোকস এবং কোচ ব্রেন্ডন ম্যাকালামের অধীনে চাপমুক্ত অবস্থায় খেলতে পারাটাই রেহানের কাছে বড় পাওনা। তরুণ লেগস্পিনারের মন্তব্য, ‘‘দিনটা কতটা খারাপ গেল, সেটা ওরা ভাবেই না। ওরা দেখে, এক জন ক্রিকেটারের কতটা দেওয়ার ক্ষমতা আছে। তার থেকে কতটা ভাল ক্রিকেট বার করে আনা যায়।’’ এর পরে রেহানের মন্তব্য, ‘‘আমি যদি চারটা খারাপ বল করে একটা উইকেট তুলে নি‌ই, তা হলে তার জন্য প্রশংসিত হবো। ১৬টা ভাল বল করার চেয়ে সেটা ভাল।’’

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Verified by MonsterInsights